Upar Vadra, P.O.- Kazla, P.S.- Boalia, Rajshahi
# মদীনাতুল উলুম কামিল মাদরাসা, রাজশাহী এর নতুন সাইট উদ্বোধন উপলক্ষে অধ্যক্ষের পক্ষ থেকে সকলকে আন্তরিক শুভেচ্ছা ও অভিনন্দন। #

প্রতিষ্ঠান প্রধানের বাণী

“পড় তোমার প্রভূর নামে” আল্লাহ্ পাকের এই অমীয় বাণী মানব জাতিকে আল্লাহর সন্তুষ্টি অর্জন করে দুনিয়া ও আখিরাতের সকল তার দ্বারপ্রান্তে পৌছার শিক্ষা অর্জনের জন্য উজ্জিবিত করে। সুশীল সমাজের সুশিক্ষিত গভর্ণিং বডির তত্তাবধানে উচ্চ শিক্ষিত ও অভিজ্ঞ শিক্ষক মন্ডলী দ্বারা পরিচালিত হওয়ায় মাদরাসাটির শ্রেষ্ঠ ফলাফলের ভিত্তিতে অনেকবার Top Ten এর অর্ন্তভূক্ত হয়েছে এবং ১৯৯৬ সালে ও ২০০২ সালে মাদরাসাটি জাতীয় পর্যায়ে শ্রেষ্ঠ শিক্ষা প্রতিষ্ঠান হিসেবে দু’বার পুরস্কৃত হয়ে মেডেল প্রাপ্ত হয়েছে। তাছাড়া মাদরাসাটি ২০১০ সালে সরকারী ভাবে মডেল মাদরাসা হিসাবে স্বীকৃতি লাভ করেছে। এখান থেকে পাশ করে ছাত্র-ছাত্রীরা মেডিকেল, বুয়েট, রুয়েট, মেরিন ইঞ্জিনিয়ারিং, টেক্সটাইল ইঞ্জিনিয়ারিংসহ বিশ্ববিদ্যালয় সমূহে বিভিন্ন বিভাগে ভর্তি হয়ে থাকে এবং রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ে অধ্যাপক পদে ও সমগ্র দেশে গুরুত্বপূর্ণ উচ্চ পদে কর্মরত আছে। এই মাদরাসার শিক্ষার আলো বাংলাদেশের প্রতিটি জেলার প্রত্যন্ত অঞ্চলে পৌছে গেছে। ইনশায়াল্লাহ্ আশা করছি এর আলো একদিন গোটা পৃথিবীকে আলোকিত করবে। তাই আমি মাদরাসার সম্মাণিত দাতা, গভর্ণিং বডি, অভিভাবক, শিক্ষক মন্ডলী এবং ছাত্র-ছাত্রী সকলের দীর্ঘায়ু ও সুস্বাস্থ্য কামনা করছি এবং যারা মারা গেছে তাদের আত্মার শান্তি কামনা করছি। আর মাদরাসাটি যেন কিয়ামত পর্যন্ত দীর্ঘজীবি হয় তার জন্য মাদরাসার উত্তরোত্তর মঙ্গল ও সমৃদ্ধি কামনা করে সকলের নিকট দু’য়া প্রার্থনা করছি। তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তির ক্ষেত্রে বর্তমান সরকার যুগান্তকারী পদক্ষেপ গ্রহণ করেছে। আইসিটির কল্যাণ বর্তমানে ঘরেই বসে যেকোন বিষয়ে শিক্ষা গ্রহণ ও শিক্ষা উপকরণ আদান-প্রদান সম্ভব হচ্ছে। দেশ এগিয়ে গেছে অনেক দূর। অন লাইনে রেজিষ্ট্রেশন, ফরমপূরণসহ বিভিন্ন তথ্য আদান-প্রদান করা অবরিত সুযোগ আসায় অর্থ-শ্রম ও সময়ের অপচয় রোধ হয়েছে এবং দূর্ণীতি বহুলাংশে কমে গেছে। দেশের সকল শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে বিশেষ করে মাদরাসা সমূহে ওয়েব সাইট পোর্টাল চালু করায় আমরা বাংলাদেশ মাদরাসা শিক্ষা বোর্ড, শিক্ষা মন্ত্রণালয়, গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকার এবং এতদ সংশ্লিষ্ট সকল ব্যক্তি ও প্রতিষ্ঠানকে ধন্যবাদ জানাই।।
মোঃ মোকাদ্দাসুল ইসলাম